তালেবানদের জিহাদী অ্যাপ মুছে দিলো গুগল

 

নিজেদের প্লে-স্টোর থেকে তালেবানদের স্মারটফোন অ্যাপ রিমুভ করলো গুগল। মার্কিন এই টেক জায়ান্ট গত সোমবার তালেবানদের এই অ্যাপ সরিয়ে নেওয়া নিয়ে নিজেদের স্বীকারোক্তি দেয়।

“আলেমরাহ” নামের পশতু ভাষার এই অ্যাপ-এ আফগান আন্দোলনের বিভিন্ন বক্তব্য ভিডিও ছিলো। এই ভিডীও গুলো রেকর্ড হতো পাকিস্তান-আফগানিস্তান এবং ইরানে। তবে গোষ্ঠিগত কোনো বিভেদ নয় গুগলের নীতিমালা ভঙ্গ করেছে বলেই এই অ্যাপ সরিয়ে নিয়েছে বলে জানিয়েছে বিবিসি।

1280-640x360

মার্কিন ইন্টিলিজেন্স গ্রুপ এসআইটিই ই সর্ব প্রথম নজরে আনে এই অ্যাপের বিষয়টি। অ্যাপটি লঞ্চের ঠিক পরের দিনই তা সরিয়ে নেয় গুগল। তবে এ থেকে স্পষ্টত যে জঙ্গীরাও এখন সচেতন হচ্ছে টেকনোলজির ব্যাপারে। কিভাবে তাদের কথা,তাদের বক্তব্য-ভিডিও ছড়িয়ে দেওয়া যাবে বাকি দুনিয়ার কাছে সেই চিন্তাতেই লেগেছে তারা।কিন্তু ১৯৯৬-২০০৬এ যখন তালেবানরা আফগান শাসন করেছিলো তখন ইলেক্ট্রনিক সব বস্তুই নিষিদ্ধ ঘোষনা করা হয়েছিলো। জীবন্ত বস্তুর ভিডিও নিষিদ্ধ ছিলো এওবং একটা ভিডীও প্লেয়ারের মালিককে ফাসির কাষ্ঠে প্রান ও দিতে হতো।সেই তালেবানরাই আজ অনেক উন্নত চিন্তা নিয়ে এগুচ্ছে। তারা এখন সোশিয়াল মিডিয়া বা সামাজিক গনমাধ্যমগুলোকে  ব্যাবহার করছে নিজেদের প্রচারের জন্য যেখানে তারা আগে এগুলোকে নিষিদ্ধ করেছিলো।নিজেদের ওয়েবসাইট ফেসবুক-টুইটারে তারা এখন অনেক বেশি শক্তিশালী। কিছুদিন আগে নিজেদের মেসেজিং সার্ভিস “টেলিগ্রাম” ও বের করেছিলো তারা।

 

 

 

উদয়

সবার মধ্যেই কিছু না কিছু থাকে,সেই কিছু খোজার প্রচেষ্টাতেই আছি। ভালো লাগে টেকনোলজি,তাই টেক-মাস্টারব্লগের সাথে সম্পৃক্ততা ।

আপনার মতামত ...