পর্যটন খাত ডিজিটাল করতে জোভাগো

এগিয়ে যাওয়া প্রযুক্তির সাথে পাল্লা দিয়ে পর্যটন খাতে পেয়েছে ডিজিটাল ছোঁয়া। প্রযুক্তির ব্যবহারের মাধ্যমে পর্যটন খাতকে আরও বেশি এগিয়ে নেয়া সম্ভব। ইতোমধ্যে এই প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। সাম্প্রতি আয়োজিত ট্যুরিজম ফেয়ারে ‘পর্যটন খাতে ডিজিটাল ইনোভেশন” শীর্ষক আলোচনা সভায় এই তথ্য জানাও বক্তার।

ইন্টারন্যাশনাল কনফারেন্স সেন্টার বাংলাদেশ (আইসিসিবি)’তে তিন দিনের পঞ্চম এশিয়ান ট্যুরিজম ফেয়ারে অনুষ্ঠিত হয় এই সভা।

এই আলোচনা সভায় জোভাগোর ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোঃ কায়েস আলী বলেন, “সর্বত্র প্রযুক্তির ছোঁয়া পর্যটন শিল্পকে এগিয়ে নিয়ে গেছে কয়েক ধাপ । বিজ্ঞানের জয়যাত্রাকে পথচলার সঙ্গী করে ভ্রমণ আয়োজন এখন হাতের নাগালে আনতে কাজ করছে জোভাগো।”

তিনি আরও বলেন, ক্রম-পরিবর্তনশীল চাহিদা এবং সময় আর সাধ্যের সমন্বয়ে জোভাগো একটি মাত্র প্ল্যাটফর্মে হাজির করেছে প্রায় ৬৪টি জেলায় ছড়িয়ে ছিটিয়ে ৯০০ এবং বিশ্বব্যাপী ২০০,০০০ এরও বেশি হোটেলের প্রকৃত বিশ্বাসযোগ্য তথ্যসমূহ। জোভাগোতে ব্যবহারকারীরা সকল হোটেলের মূল্য, মান যাচাই বাছাই করে বাজেট অনুযায়ী বুকিং দিয়ে দিতে পারবেন। ভ্রমণ আরও সহজ করতে জোভাগোতে রয়েছে কল সেন্টারের সুবিধা।

সাবেক বিমান পরিবহন ও পর্যটন-মন্ত্রী গোলাম মোহাম্মদ কাদের বিশেষ অতিথি হিসেবে পর্যটন মেলার উদ্বোধন করেন। বাংলাদেশ পর্যটন কর্পোরেশন চেয়ারম্যান অপরূপ চৌধুরী পিএইচডি, বাংলাদেশ ট্যুরিজম বোর্ডের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা জনাব আখতারুজ জামান খান কবির, ট্যুরিজম রিসোর্ট ইন্ডাস্ট্রিজ এসোসিয়েশন অফ বাংলাদেশ (ট্রিয়াব)প্রেসিডেন্ট খবির উদ্দিন আহমেদ ট্যুর অপারেটস এসোসিয়েশন অফ বাংলাদেশ (টোয়াব) প্রেসিডেন্ট জনাব তৌফিক উদ্দিন আহমেদ এবং জোভাগোর ব্যবস্থাপনা পরিচালক জনাব মোঃ কায়েস আলী এসময়ে উপস্থিত ছিলেন। বাংলাদেশ পর্যটন বর্ষ ২০১৬ উৎসবকে সামনে রেখে ও বিশ্ব পর্যটন দিবস উপলক্ষে আয়োজিত এ মেলার সহযোগিতায় ছিল বাংলাদেশ ট্যুরিজম বোর্ড (বিটিবি) ও বাংলাদেশ পর্যটন কর্পোরেশন (বিপিসি), প্রিমিয়াম পার্টনার ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশ লিমিটেড এবং ইউনাইটেড নিউজ অফ বাংলাদেশ (ইউএনবি)।

তিনদের এই মেলায় বিশেষ প্রতিযোগীতার আয়োজন করা হয়। সমাপনী অনুষ্ঠানে জোভাগোর ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোঃ কায়েস আলী এ প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের বীচ রিসোর্টে এক রাত অবকাশ যাপনের কুপন দেয় ।

উল্লেখ্য এই মেলায় পর্যটনশিল্প সংশ্লিষ্ট সকল এজেন্ট, হোটেল, এয়ারলাইন্স এবং অন্যান্য প্রতিষ্ঠান পারস্পরিক সহযোগিতা এবং সম্পর্ক উন্নয়ন ছাড়াও এ মেলার ফলে সুযোগ পায় দর্শনার্থীদের সামনে সুলভ ও শ্রেষ্ঠ অফার আর ডিসকাউন্টসমূহ তুলে ধরার।

আপনার মতামত ...