সময় বাচানো “উবার” সার্ভিস

বেশ কয়েক মাস ই হয়ে গেলো রাজধানীতে দুর্দান্তভাবে চলছে উবার। শুরুতে বিআরটিসি কতৃক কিছু সমস্যা দেখা দিলেও তা ভালোভাবেই কাটিয়ে উঠেছে উবার সার্ভিস। উবারের জন্ম ২০০৮ সালে প্যারিসে দুজন লোকের হাত ধরে যারা কিনা রাস্তায় দাঁড়িয়ে ট্যাক্সি খুজছিলেন। হুট করে একটা চিন্তা মাথায় এলো, আচ্ছা যদি একটা বাটন প্রেস করলেই ট্যাক্সি নিজেই আমার কাছে এসে যেতো? তারপর শুধু বাস্তবায়ন। এক এক করে এখন ঢাকাসহ বিশ্বের ৬২৬টি শহরে চালু আছে উবার।

উবার কি? 

উবার একটা ট্যাক্সি সার্ভিস। সাধারণত ব্যাস্ত ঢাকার রাস্তায় আমরা প্রয়োজনে ট্যাক্সি-সিএনজি-রিকশা খুজি কিন্তু উবার কার রিকোয়েস্টের মাধ্যমে আমরা গাড়ি আমাদের কাছেই আনতে পারি। মোবাইলের জিপিএস দিয়ে উবারের সফটওয়্যার আমাদের লোকেশন বুঝে নেয়, তারপর আমরা যখন ম্যাপে সিলেক্ট করে গাড়ির জন্য রিকোয়েস্ট করি তখন উবার আমাদের লোকেশন সহ আমাদের যাবার জায়গা আশেপাশের কয়েক কিমির ড্রাইভারদের পাঠায়। তারপর যেকোনো একজন ড্রাইভার রিকোয়েস্ট এক্সেপ্ট করে চলে আসে। এছাড়া রিকোয়েস্টের পর গাড়ির ড্রাইভারের নাম্বার ও আপনি পাবেন পাশাপাশি গাড়ির নাম্বার ও তাই খুজে নিতেও কোনো সমস্যা নেই।

কিভাবে উবার ব্যবহার করবেন?

প্রথমেই আপনাদের উবারের অ্যাপ ডাউনলোড করে নিতে হবে। –  playstore link

তারপর ঝটপট একটা অ্যাকাউন্ট খুলে ফেলুন, মোবাইল নাম্বার বা ইমেল দুটোই ব্যবহার করতে পারেন।

অ্যাকাউন্ট খুলার পর আপনি রেডি। এবার নিজের জিপিএস অন করুন তারপর “where to” বক্সে যেখানে যাবেন সেই ঠিকানাটি লিখুন।

একেবারে এক্সাক্ট বাড়ি ফ্লাট নাম্বার লেখা লাগবে যে তা না আশে পাশের কোনো জানা জায়গা যেমন বাস স্টপেজ বা কোনো বড় ভবন বা স্থাপনার নাম লিখা সার্চ করতে পারেন।  চাইলে ম্যাপে লোকেশন টা বসিয়েও দিতে পারেন। পরে ড্রাইভারকে বলে নিজের পছন্দমতো জায়গায় নিয়ে যেতে পারেন।

 

লোকেশন বসানো হলে Done চাপুন।

 

 

 

 

 

 

এখানে দেখুন আমি বক্সে মিরপুর ১০ লেখার পর আমার জিপিএস থেকে পাওয়া লোকেশন দিয়ে উবার নিজেই সম্ভাব্য একটা রুট দেখাচ্ছে পাশাপাশি আশেপাশের গাড়িগুলো কোথায় আছে তাও দেখাচ্ছে। এবং সাথে সাথে আপনার ওখানে পৌছাতে সম্ভাব্য খরচ ও দেখাচ্ছে।

আপনি টাকার উপর প্রেস করলে আপনাকে সে খরচের বিস্তারিত ও দেখাবে। তারপর আপনি ড্রাইভারের নাম্বার,গাড়ির নাম্বার,গাড়ির রঙ সহ ডিটেইলস দিবে। আপনি চাইলে ড্রাইভারকে ফোন দিয়ে কোথায় আছে কতক্ষন লাগবে জিজ্ঞেস করতে পারেন।

 

 

তবে এই টাকা ই যে আসবে তা ঠিক নয়। এর চেয়ে কিছুটা কম ও আসতে পারে আবার বেশি ও ডিপেন্ড করবে জ্যাম এবং রুটের উপর। যেমন সর্বনিম্ন চার্জ ১০০টাকা প্রতি কিমি ২১টাকা এবং প্রতি মিনিট ৩ টাকা করে চার্জ করে। আর এই পুরোটা হিসেব হবে ড্রাইভারের ফোনের অ্যাপের মাধ্যমে।

 

আপনি পেমেন্ট ক্যাশ কিংবা ক্রেডিট কার্ড দিয়েও করতে পারেন।

 

 

উবারের সীমাবদ্ধতা
  1. উবারের সমস্যা হলো এটা ঢাকার বাইরে আপনাকে নিয়ে যাবেনা।
  2. একসাথে ৪জনের বেশি যাত্রী যেতে পারবেন না।
  3. জ্যামে পড়লে খরচ বাড়বে।
উবারের সুবিধা
  1. যখন যেখানে মন চায় উবার সার্ভিস ডাকতে পারেন।
  2. এয়ারপোর্টে উবার আগে থেকেই বুক করে রাখতে পারবেন।
  3. কোনো কিছু গাড়িতে ফেলে রাখলে সেটা সম্পর্কে রিপোর্ট করতে পারবেন,আর ব্যাক্তিগতভাবে এ ব্যাপারে উবার অভিজ্ঞতা ভালোই আমার।
  4. উবারে বেশি চলাচল করলে ফ্রি রাইড-ক্রেডিট পাবেন আমি নিজেও বেশ কয়েকবার ফ্রিতে ভ্রমন করেছি।
  5. আপনার নিজের গাড়িও উবারে ব্যবহার করতে দিতে পারেন এক্ষেত্রে আপনার সাপ্তাহিক আয় হবে ২০,০০০টাকা।

 

 

 

 

 

 

 

উদয়

সবার মধ্যেই কিছু না কিছু থাকে,সেই কিছু খোজার প্রচেষ্টাতেই আছি। ভালো লাগে টেকনোলজি,তাই টেক-মাস্টারব্লগের সাথে সম্পৃক্ততা ।

আপনার মতামত ...