মোবাইল ফটোগ্রাফির সেরা ৩ অ্যাপ

ফটোগ্রাফি কে না ভালোবাসে? কেউ অবসর সময়ের শখ হিসেবে অথবা কেউ পেশা হিসেবে। সকলেই ছবি তুলতে ভালোবাসে। বর্তমানে ফটোগ্রাফি হাতের মুঠোয় চলে এসেছে মোবাইল ফোনের দুর্দান্ত সব ক্যামেরার বদৌলতে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে আমরা দারুণ সব ছবি দেখতে পাই, আপনিও যদি এরকম অসাধারণ ছবি নিজে তুলতে চান। তাহলে আমাদের পোস্টটি ফলো করুন।

আমরা আজ আপনাদের জন্য নিয়ে এসেছি ৩ টি ফটোগ্রাফি অ্যাাপ, আপনি যদি ফটোগ্রাফি তে নতুন হয়ে থাকেন, তাহলে এপগুলো আপনাদের খুবই কাজে দিবে।

জিক্যামঃ


মোবাইলে ছবি তোলার জন্য অত্যন্ত জনপ্রিয় এবং কার্যকরী একটি অ্যাপ। একটি ছবির সৌন্দর্য বা গ্রহণযোগ্যতা নির্ভর করে ছবিটির ডিটেইল, কালার এবং ডাইনামিক রেঞ্জ এর উপর। আর এসব ক্ষেত্রে জিক্যাম বা গুগল ক্যামেরার কোনো তুলনাই নেই! আপনার ফোনে যে ক্যামেরা অ্যাপটি ইন্সটল করা থাকে তার পাশাপাশি আপনি এই অ্যাপটি ব্যাবহার করতে পারবেন।

এই ক্যামেরা অ্যাপটি বানানো হয়েছে শুধুমাত্র গুগল পিক্সেল ফোনগুলোর জন্য। কিন্তু বিভিন্ন অ্যাপ ডেভেলপার এই এপটির বিভিন্ন ভার্সন বের করে থাকেন বিভিন্ন মোবাইল ফোনে ব্যাবহারের জন্য। গুগল ক্যামেরাই আপনার ফোনের ক্যামেরার সর্বোত্তম ব্যাবহার করতে পারে। এই অ্যাপটি গুগল প্লেস্টোর এ পাবেন না। এখানে ক্লিক করে আপনি গুগল ক্যামেরার ডাউনলোড পেজে চলে যেতে পারবেন। এছাড়াও গুগলে আপনার ফোনের নাম + জিক্যাম লিখে সার্চ দিলেও আপনি অ্যাপটি পেয়ে যাবেন।

মোবাইল ফটোগ্রাফির সেরা ৩ অ্যাপ 2

স্ন্যাপসিডঃ


ছবি এডিটের জন্য এটি সর্বাধিক ব্যবহৃত অ্যাপ। এই অ্যাপটিরও প্রতিষ্ঠাতা গুগল। অ্যাপটি তে একটি ছবি ইডিট করার যত বৈচিত্র্য রয়েছে তা অবাক করার মতো। এখানে আপনি একটি ছবির বেসিক এডজাস্টমেন্ট থেকে শুরু করে মেনিপুলেশনের মতো কাজও করতে পারবেন। এসবের পাশাপাশি অ্যাপটি তে থাকছে ম্যানুয়াল এইচডিয়ার ইফেক্ট, ইউনিক কিছু টেক্সট ফরম্যাট, মুখের পজিশন চেঞ্জ করার মতো মজার একটি ফিচার এবং সিনেমাটিক বিভিন্ন ইফেক্ট।

ডাউনলোড লিঙ্ক

মোবাইল ফটোগ্রাফির সেরা ৩ অ্যাপ 3

লাইটরুমঃ


এডভান্স ফটোগ্রাফার দের অন্যতম হাতিয়ার এই অ্যাপটি। এই অ্যাপটি তে এমন কিছু ফিচার রয়েছে যা অন্য কোনো অ্যাপ দ্বারা করা সম্ভব নয়। অ্যাপটির প্রতিষ্ঠাতা এডোবি। এই অ্যাপটির মাধ্যমেও আপনি স্ন্যাপসিড এর বেসিক কাজগুলো করতে পারবেন। কিন্তু এর মূল আকর্ষণ হচ্ছে ছবির রঙ পরিবর্তনের সুবিধাটি। আপনি চাইলেই একটি ছবির নির্দিষ্ট কোনো রঙ কে পরিবর্তন করতে পারবেন আপনার ইচ্ছা মতো। কালার গ্রেডিং এর জন্য সেরা অ্যাপ বিবেচনা করা হয় লাইটরুমকে। এছাড়াও এতে থাকছে নানা রকমের ইফেক্ট, যা আপনার ছবিকে দিবে এক নতুন রূপ।

ডাউনলোড লিঙ্ক

মোবাইল ফটোগ্রাফির সেরা ৩ অ্যাপ 4

 

এই ছিলো মোবাইল ফটোগ্রাফি নিয়ে আজকের আলোচনা। এ বিষয়ে আরও টিপস পেতে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন। ধন্যবাদ।

Sabbir Hasan

প্রযুক্তি নিয়ে অত্যন্ত কৌতূহলী। জানতে এবং জানাতে ভালো লাগে, তাই মাঝে মাঝে টুকিটাকি এই অনভিজ্ঞ হাতের লেখালিখি। পড়ালেখার পাশাপাশি আমি একজন গ্রাফিক ডিজাইনার এবং ফ্রন্ট-এন্ড ওয়েব ডেভেলপার।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।